Xiaomi MI 5 রিভিউ

Posted on 19 May, 2017 in hardware

Xiaomi MI 5 Photo by Minhaz

শুরুতেই বলে নেই, নিচের সকল মতামত ও এনালাইসিস প্রায় মাসখানেক ধরে নানারকম মডেলের ফোন (যেমন OnePlus3, Nexus 5X/6P, iPhone 6, Samsung A3, HTC A9, Samsung A5 2017 ইত্যাদি) এর সাথে তুলনা করে করা হয়েছে। এবং যেহেতু আমি একজন ডেভলপার, কাজেই আমার রিভিউ এবং অন্যদের রিভিউ আলাদা হতে পারে। তবুও আমি চেষ্টা করছি নিরপেক্ষ রিভিউ করতে।

ফিচার লিস্ট

GSMArena এর কল্যাণে সব ফিচার এমনিতেই জেনে যাবার কথা। তবুও আরেকবার বলে নেই।

  • Qualcomm Snapdragon 820 প্রসেসর, সবচে জনপ্রিয় ফ্লাগশিপ প্রসেসর। সম্প্রতি প্রায় সকল হাই এন্ড ফোনগুলো 820 সিরিজ বা তার পরবর্তী অপটিমাইজড সিরিজ 821, 835 চিপসেট নিয়েই বের হচ্ছে। MI 5 এ দেওয়া হয়েছে কোয়াড কোর ২.১৫ গিগাহার্টজ প্রসেসর (armv8l আর্কিটেকচার)।
  • Adreno 530 জিপিইউ যা 650 মেগাহার্টজ স্পীড পর্যন্ত কাজ করে। ফলে গেমিং, ইউজার ইন্টারএকশন, এনিমেশন, ভিডিও রেন্ডারিং হয় দ্রুত।
  • 1920x1080 রেজুলশনের ডিসপ্লে যার পিপিআই হল 428, সাইজ 5.15 ইঞ্চ। বলা হচ্ছে যে এই স্ক্রিণ ভালই স্ক্র্যাচ রেজিস্টেন্ট।
  • 3 গিগাবাইট DDR4 র‍্যাম। ফলে মাল্টিটাস্কিং করার জন্য পর্যাপ্ত মেমরি থাকছে।
  • সামনে 4 মেগাপিক্সেল, পেছনে 16 মেগাপিক্সেল ক্যামেরা।
  • 802.11 A/C সাপোর্টেড ওয়াইফাই। NFC ও আছে।
  • ইউএসবি Type-C, সাথে ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট (Quick Charge 3) আছে।
  • 3000 mAh লিপো ব্যাটারী।
  • LED ইনডিকেটর যা কল, মেসেজ ও অন্য নোটিফেকশন অনুযায়ী রঙ পরিবর্তন করে
  • ফিংগারপ্রিন্ট সেন্সর যা বেশ দ্রুত কাজ করে
  • ফিজিকাল হোম বাটন
  • 4G/LTE সাপোর্টেড।
  • IR Blaster আছে (meh!)
  • সেন্সর: এক্সিলারোমিটার (হেহে, আবার জিগায়!), ম্যাগনেটোমিটার, জাইরোস্কোপ, প্রক্সিমিটি সেন্সর, লাইট সেন্সর, প্রেসার সেন্সর, হল সেন্সর (ফ্লিপ কভারের জন্য), গ্র্যাভিটি সেন্সর, গেম রোটেশন সেন্সর, স্টেপ কাউন্টার সেন্সর, জিওম্যাগনেটিক সেন্সর, ৮ রকম থার্মাল সেন্সর (হাঁপায়া গেলাম, CPUZ দিয়ে দেখে নিন প্লিজ)।

MI 5 এর ভাল দিক

  • শক্তিশালী প্রসেসর।
  • চমৎকার ডিসপ্লে।
  • ফিংগারপ্রিন্ট সেন্সর বেশ দ্রুত।
  • ফিজিকাল হোম বাটন, ট্যাপ করলেই আনলক+হোমে যাওয়া যায়।
  • ক্যামেরা মোটামুটি, ম্যানুয়াল মোডে ছবি তোলা যায়।
  • এলুমিনিয়াম ফ্রেম থাকায় ডিজাইন বেশ সুন্দর ও ইউনিক।
  • অডিও কোয়ালিটি বেশ ভাল, Samsung, Xiaomi এর হেডসেটগুলা চমৎকার কাজ করে। এমনকি লাউডস্পীকারের কোয়ালিটিও বেশ ভাল।
  • কেনার পরপরই Android 7 এ আপগ্রেড করে ফেলা যায়।
  • চাইলে অফিশিয়ালি বুটলোডার আনলক করা সম্ভব।
  • ১ ঘন্টাতেই ফোন ফুল চার্জ করে ফেলা সম্ভব।
  • একাধিক ফিংগারপ্রিন্ট সেট করা যায়।
  • 64GB মডেলে ইউজারস্পেসে 54 গিগাবাইট স্পেস এভেইলেবল থাকে।

MI 5 এর খারাপ দিক

  • ব্যাক প্যানেল পুরোটা কাঁচের, কাজেই একবার হাত থেকে পড়লে বা বেশী চাপ লাগলেই ... (Bend Test)
  • কয়েক মিনিট ব্যাবহার করলে ভাল গরম হয়, আবার স্লিপ মোডে চলে গেলে ঠান্ডা হয়
  • কয়েক মিনিট কথা বললে অনেক বেশী গরম হয়ে যায়, বিশেষ করে ক্যামেরার নিচের অংশ
  • MIUI 8 আমার দেখা চরম বাজে একটা ইন্টারফেস। আইকনগুলা Sort করা যায়না। আলাদা হোম নেই। আর Google Now/Action/Nova Launcher ব্যাবহার করলেও MI এর এপসগুলার আইকন চরম বাজে।
  • ডুয়াল সিম ব্যাবহার করলে 3000 mAh ব্যাটারী দ্রুত শেষ হয়ে যায়।
  • ডিসপ্লে AMOLED না, এমনকি ব্রাইটনেস লেভেল দিনের আল‌োয় ৫০% এর নিচে দিলে প্রায় কিছুই দেখা যায়না।
  • সকল App অফ করার পর মাত্র 1.5 গিগাবাইটের মত ইউজার এভেইলেবল র‍্যাম থাকে।

যে কারণে MI 5 কিনবেন

  • যদি আপনার বাজেট ২০-২৫ হাজার টাকা হয়।
  • যদি আপনি ক্যামেরা বা বিল্ড কোয়ালিটির চেয়ে ফিচার ও স্পীডকে বেশী প্রাধান্য দিয়ে থাকেন।
  • যদি আপনার হাত থেকে ফোন পড়ে ভাঙার হার কম হয়।
  • যদি Android Nougat আপডেট না পেলে আপনার ঘুমে সমস্যা হয়।
  • যদি আপনার A/C ব্যান্ডের রাউটার থাকে।
  • যদি বুটলোডার আনলক করে Lineage OS (aka CyanogenMod) রম ব্যাবহার করতে চান।
  • যদি মিডিয়াম সাইজের ডিসপ্লে প্রেফার করেন।

যে কারণে MI 5 কেনা উচিত হবেনা

  • যদি আপনি iPhone 5/6/7, Samsung S6/7/8, Nexus 5/6 ইউজার হয়ে থাকেন (ক্যামেরা আর বিল্ড কোয়ালিটি দেখে ভয়াবহ হতাশ হবেন)।
  • দীর্ঘসময় ফোন হাতে রাখেন বা কথা বলেন বা গেম খেলেন (গরম লেগে ফোস্কাও পড়তে পারে)।
  • ব্যাক কভার ছাড়া ফোন ব্যাবহারের অভ্যাস থাকে।
  • যদি Samsung TouchWiz ফ্যান হয়ে থাকেন।

প্রয়োজনীয় লিংক

রিভিউ পড়ার জন্য ধন্যবাদ। যদি আরো কোন ইনফরমেশনের দরকার হয়, বা সাজেশন/টিপস/ক্রিটিকস থাকে, তাহলে কমেন্ট বক্সে জানাতে পারেন। :)